৩য় দিনের মত চলছে ত্রিশালের সাখুয়ায় বর্ষবরণ উৎসব

এইচ এম মোমিন তালুকদার, ত্রিশাল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি ঃ ময়মনসিংহের ত্রিশালের সাখুয়া ইউনিয়নের বেপক উদ্দিপনার মধ্য দিয়ে ৩য় দিনেও উৎসব আর আনন্দে চলছে বাংলা ১৪২৩ নববর্ষ উদযাপন।

বাংলা নববর্ষ বাঙ্গালীর প্রাণের উৎসব। শহর গুলোর সাথে সাথে গ্রাম গুলোতেও বর্ষবরণের কোন কমতি নেই। ময়মনসিংহের ত্রিশালের সাখুয়া ইউনিয়নের ফকির বাজার স্কুল মাঠে ৩য় দিনেও বাংলা নববর্ষ উৎসব আর আনন্দে পালিত হচ্ছে। এখনো মেলায় ১৮টি কসমেটিক্স ও খেলনার দোকান রয়েছে। খাবারের দোকান ৫টি, মাটির জিনিসের ৩টি, চারা গাছের ১টি দোকান এখনো রয়েছে। কসমেটিক্স ও খেলনা বিক্রেতা আনারুল ইসলাম জানান, নববর্ষের ৩য় দিন হলেও বিক্রেতাদের গত দুই দিন সকল বয়সী লোকদের উপচেপড়া ভীর থাকায় ভালো বিক্রি হয়েছে।

বিশেষ করে কসমেটিক্স গুলো সব বিক্রি হয়ে গেছে। এখন পর্যন্ত সব মিলিয়ে প্রায় ১০হাজার টাকার মতো বিক্রি হয়েছে। ভালো মুনাফা পাবেন বলে আশা করছেন কসমেটিক্স ও খেলনা বিক্রেতারা। মাটির জিনিস বিক্রেতা প্রদ্বীপ জানান, মেলায় মাটির জিনিস গুলোর প্রতি ক্রেতাদের তেমন কোন আগ্রহ দেখাযায়নি। তবে ছোট বাচ্চাদের মাটির খেলনা গুলো কিছু বিক্রি হয়েছে। বৈশাখী মেলায় এক সময় মাটির তৈরি জিনিস, মুড়ি মুরকি ও বাতাসার দোকান গুলোতে থাকত অনেক ভীড়। এভাবে মাটির জিনিস গুলোর প্রতি অবহেলায় এক সময় হারিয়ে যাবে বাংলার এই ঐতিহ্য।

মেলায় ঘুরতে আশা উৎসব প্রেমীরা জানান, বর্ষবরণ আমাদের বাঙ্গালীদের একটি প্রাণের উৎসব। এই উৎসবে আমাদের অনেক ঐকিহ্য জরিয়ে রয়েছে। গত দুই দিনে মেলায় অনেক আনন্দ করেছি এবং আজকেও আমাদের বর্ষবরণ উৎসবের কোন কমতি নেই। আজ শনিবার সরকারী ছুটি থাকায় অনেকে পরিবার নিয়ে নববর্ষের ৩য় দিনেও মেলায় ঘুরতে আসছেন। দিন শেষে বিকালে মেলার এক পাশে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান উপভোগ করতে সকলে একত্রিত হয়।

মন্তব্য করুনঃ